সর্বশেষ আপডেট ৮ ঘন্টা ২ মিনিট আগে
আপনি আছেন হোম / অর্থনীতি / দুর্নীতি / নিজেকে নির্দোষ দাবি বাচ্চুর

নিজেকে নির্দোষ দাবি বাচ্চুর

প্রকাশিত: ০৪ ডিসেম্বর ২০১৭ ১৩:৩৩ টা | আপডেট: ০৪ ডিসেম্বর ২০১৭ ১৮:০৮ টা

নিজস্ব প্রতিবেদক, অনলাইন বাংলাঃ

সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকার ঋণ কেলেঙ্কারি সাথে যুক্ত থাকার দায় নিয়েও নিজেকে নির্দোষ দাবি করেছেন বেসিক ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান শেখ আবদুল হাই বাচ্চু।

তিনি বলেছেন, নিজেকে দোষী বলে মনে করি না।

সোমবার দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) তলবে সেগুনবাগিচায় দুদক কার্যালয়ে হাজির হওয়ার পর সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে তিনি একথা বলেন।

বেসিক ব্যাংকের দুর্নীতি নিয়ে সুপ্রিম কোর্টের কয়েক দফা পর্যবেক্ষণের পর সম্প্রতি ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যান বাচ্চু ও পরিচালনা পর্ষদের সদস্যদের জিজ্ঞাসাবাদের উদ্যোগ নেয় দুর্নীতি দমন কমিশ (দুদক)।

সুপ্রিম কোর্টের পর্যবেক্ষণ অনুযায়ী আবদুল হাই বাচ্চু সকাল সাড়ে ৯টায় দুদক কার্যালয়ে উপস্থিত হলে বেলা পৌনে ১১টায় তাকে  জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে দুদক।

জিজ্ঞাসাবাদের আগে জানতে চাইলে জাতীয় পার্টির সাবেক এমপি আবদুল হাই বাচ্চু বলেন, নিজেকে দোষী মনে করি না।

গত ২২ নভেম্বর থেকে ঋণ কেলেঙ্কারির এ ঘটনায় দুদকের জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। এরআগে গত ৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত বেসিক ব্যাংকের সাবেক ১০ পরিচালককে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে।

তারা হলেন ব্যাংকটির পরিচালনা পর্যদের সাবেক সদস্য আনোয়ারুল ইসলাম, আনিস আহমদ, কামরুন নাহার আহমেদ, অধ্যাপক কাজী আকতার হোসাইন, সাখাওয়াত হোসেন, ফখরুল ইসলাম, একেএম কামরুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর আখন্দ সেলিম, শ্যাম সুন্দর শিকদার ও একেএম রেজাউর রহমান।

জিজ্ঞাসাবাদে উপস্থিত থাকার জন্য গত ১৮ নভেম্বর আবদুল হাই বাচ্চুর বনানীর ডিওএইচএসের বাড়ির ঠিকানায় নোটিশ পাঠানো হয়।

আবদুল হাই বাচ্চুর নেতৃত্বাধীন পর্ষদ ২০১২ সালের এপ্রিল থেকে ২০১৩ সালের মার্চ পর্যন্ত মাত্র ১১ মাসে নজিরবিহীন অনিয়মের মাধ্যমে ৩ হাজার ৪৯৩ কোটি ৪৩ লাখ টাকা ঋণের নামে বিভিন্নজনকে দিয়ে দেয়।

বাংলাদেশ ব্যাংক তখন তদন্ত করে বলেছিল, ৪০টি দেশীয় তফসিলি ব্যাংকের কোনোটির ক্ষেত্রেই পর্ষদ কর্তৃক এ ধরনের সিদ্ধান্ত গ্রহণের প্রক্রিয়া পরিলক্ষিত হয় না। এই ঋণ আদায়ের সম্ভাবনাও কম।

বেসিক ব্যাংক কেলেঙ্কারিতে ২০১৫ সালের শেষ দিকে রাজধানীর মতিঝিল, পল্টন ও গুলশান থানায় ১৫৬ জনকে আসামি করে ৫৬টি মামলা করে দুদক। এসব মামলায় বেসিক ব্যাংকের ২৭ কর্মকর্তা, ১১ জরিপকারী ও ৮১ ঋণ গ্রহণকারী ব্যক্তি, প্রতিষ্ঠানসহ ১২৯ জনকে আসামি করা হয়।

মামলাগুলো তদন্ত করছেন দুদকের ১০ কর্মকর্তা। তবে কোনো মামলাতেই আবদুল হাই বাচ্চুকে আসামি করা হয়নি। এ নিয়ে জাতীয় সংসদ থেকে শুরু করে অর্থনীতিবিদ, ব্যাংক খাতের বিশেষজ্ঞ এবং সর্বশেষ আদালত পর্যন্ত সমালোচনা করেন।

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, গত ৩০ জুন পর্যন্ত বেসিক ব্যাংকের খেলাপি ঋণের হার ৫৩ শতাংশ (৭ হাজার ৩৯০ কোটি টাকা), যা যেকোনো ব্যাংকের খেলাপি ঋণের হারের চেয়ে বেশি।

পাঠক মন্তব্য () টি

ব্রোকারেজের চেয়ারম্যান পঙ্কজ রায় গ্রেপ্তার

৮ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে ব্রোকারেজ অ্যালায়েন্স সিকিউরিটিজের চেয়ারম্যান পঙ্কজ…

দুদকের মামলা: এসপির অ্যাকাউন্টে ৮ কোটি টাকা

অর্থ পাচারের দায়ে ফরিদপুর জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) সুভাষ চন্দ্র সাহা ও…

দুর্নীতি মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত নড়াইল জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কারাগারে

দুর্নীতির মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত নড়াইল জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট সোহরাব হোসেন বিশ্বাসকে কারাগারে…

কপিরাইট ২০১৪ onlineBangla.com.bd
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: গুলবুদ্দিন গালীব ইহসান
অনলাইন বাংলা, ৬৯/জি গ্রিন রোড, পান্থপথ (নীচ তলা), ঢাকা-১২০৫।
ফোন: ৯৬৪১১৯৫, মোবাইল: ০১৯১৩৭৮৯৮৯৯
ইমেইল: contact.onlinebangla@gmail.com
Developed By: Uranus BD