সর্বশেষ আপডেট ১৯ ঘন্টা ১৭ মিনিট আগে
আপনি আছেন হোম / অর্থনীতি / খবর / নতুন ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন স্থগিত হচ্ছে

নতুন ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন স্থগিত হচ্ছে

প্রকাশিত: ২১ জুন ২০১৭ ০৯:১৭ টা | আপডেট: ২১ জুন ২০১৭ ১০:৩৬ টা

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক, অনলাইন বাংলাঃ

আগামী ১ জুলাই থেকে নতুন মূল্য সংযোজন করবা ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন থেকে পিছু হটতে পারে সরকার।

এক্ষেত্রে ১৯৯১ সালের পুরোনো ভ্যাট আইন আরও এক-দুই বছর বহাল রাখা হতে পারে। অথবা ২০১২ সালের নতুন আইন বহাল রেখে যেসব ক্ষেত্রে দাম বাড়তে পারে, সেসব পণ্য ও সেবাকে ভ্যাট অব্যাহতি দেওয়া হতে পারে।

মঙ্গলবার সরকারের উচ্চ পর্যায়ের একটি সূত্র সংবাদ মাধ্যমকে এ কথা জানিয়েছে। সূত্র মতে, ব্যবসায়ী ও লবি গ্রুপের ক্রমাগত চাপের মুখে সরকার এ সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছে।

এরইমধ্যে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) কর্মকর্তাদের নতুন ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন স্থগিত করার বিষয়ে সরকারের পরিকল্পনার বিষয়ে ইঙ্গিত দেয়া হয়েছে বলে জানায় সূত্র।

নতুন ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সংশ্লিষ্টদের আলোচনা চলার কথা জানিয়েছে অর্থ মন্ত্রণালয়বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি আব্দুর রাজ্জাকও। তিনি বলেন, ব্যবসায়ী ও নাগরিকসহ সবাই যাতে খুশি থাকেন, সরকার সেই চেষ্টা করছে। আমরা আশা করি, এ ব্যাপারে একটা ভালো সিদ্ধান্ত নেওয়া সম্ভব হবে।

তবে মঙ্গলবার সচিবালয়ে সাংবাদিকেরা অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের কাছে নতুন ভ্যাট নিয়ে প্রধানমন্ত্রী কোনো নির্দেশনা দিয়েছেন কি না জানতে চাইলে তিনি বিষয়টি পরিষ্কার না করে কৌশলী জবাব দিয়েছেন।

অর্থমন্ত্রী বলেন, সংসদে বাজেট অধিবেশন চলাকালে বাজেট সংক্রান্ত বিষয় বাইরে বলার কোন সুযোগ নেই। তিনি বলেন, ভ্যাট আইন নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ মুহূর্তে কোনো কথা বলবেন না তিনি।  

তিনি আরও বলেন, আগামী ২৮ জুন আমি যখন সংসদে বক্তৃতা করব তখন বিষয়টি জানতে পারবেন। একই দিন প্রধানমন্ত্রীও বক্তৃতা করবেন। এই বিষয়ে তার বক্তৃতায় কিছু বিষয় আসবে, আমিও কিছু বিষয় নিয়ে বলব। তার আগে এ বিষয়ে কিছু জানার সুযোগ নাই।

এদিকে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ মঙ্গলবার সচিবালয়ে সাংবাদিকদের বলেন, উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই। বাজেট পাসের পর সবাই খুশি হবেন।

আইএমএফের পরামর্শে প্রণীত ২০১২ সালে নতুন ভ্যাট আইন সংসদে পাস হয়। নতুন আইনে নিত্যব্যবহার্য পণ্যের মধ্যে গ্যাস-বিদ্যুৎ, রেস্তোরাঁর খাবার, আসবাব, রড, বোতলজাত পানি, সাবান, টুথপেস্ট, দেশি পোশাক, ফ্ল্যাটসহ বিভিন্ন পণ্য ও সেবার ওপর ১৫ শতাংশ হারে ভ্যাট বসবে।

ভ্যাট আইনটি বাস্তবায়নের জন্য তিন বছর সময় নেয় সরকার। সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করে গত অর্থবছরে তা কার্যকরের ঘোষণা দেওয়া হলেও ব্যবসায়ীদের চাপে শেষ মুহূর্তে আরও এক বছর পিছিয়ে দেওয়া হয়।

পূর্বনির্ধারিত সময় অনুযায়ী, প্রস্তাবিত অর্থবছরের বাজেটে ১ জুলাই ২০১৭ থেকে নতুন ভ্যাট আইন কার্যকরের ঘোষণা দেন অর্থমন্ত্রী। গত ১ জুন এবারের বাজেট বক্তৃতায় তিনি এ ঘোষণা দেন।

এরপর থেকে সংসদের ভেতরে-বাইরে নতুন ভ্যাট আইন নিয়ে সারাদেশে সমালোচনার ঝড় বইছে। খোদ সরকারি দলের প্রভাবশালী মন্ত্রী ও এমপিরা নতুন ভ্যাট আইনের প্রবল বিরোধিতা করেন। সংসদে এই ইস্যুতে তীর্যক ভাষায় আক্রমণ করা হয় অর্থমন্ত্রীকে। কেউ কেউ অর্থমন্ত্রীর পদত্যাগও দাবি করেন।

ভ্যাট আইন বাস্তবায়নের বিষয়ে সরকারের মধ্য থেকেই প্রবল বিরোধিতা করা হচ্ছে। ফলে দলের মধ্যে থেকে পূর্ণ সমর্থন না থাকায় নির্বাচনের আগে এ আইন বাস্তবায়নের বিষয়ে ঝুঁকি নিতে চাচ্ছে না সরকার। যে কারণে আইনটি বাস্তবায়নের পথ থেকে সরে আসতে চাইছে সরকার।

এনবিআর সূত্রে জানা গেছে, নতুন ভ্যাট আইন পিছিয়ে দেওয়া হলে রাজস্ব আদায়ে কী ধরনের প্রভাব পড়তে পারে, তা নিয়ে বিশ্লেষণ করা হচ্ছে। কিংবা পুরোনো আইন বহাল রাখা হলে অনলাইনে রিটার্ন দাখিল বাধ্যতামূলক করা হতে পারে। সে ক্ষেত্রে নতুন আইনের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে পুরোনো আইনের কিছু অংশ পরিবর্তনের প্রস্তাব করা হতে পারে।

অনলাইনে রিটার্ন দাখিলের জন্য এনবিআরের সফটওয়্যার পরিবর্তন এবং ব্যবসায়ীদের প্রস্তুতির জন্য ইলেকট্রনিক ক্যাশ রেজিস্টার (ইসিআর) মেশিন সরবরাহে ছয় মাস থেকে এক বছর সময় নেওয়া হতে পারে।

সূত্র জানায়, ১৯ জুন পর্যন্ত মাত্র ৪৩ হাজার ২৪৪টি ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান অনলাইন নিবন্ধন নিয়েছে। এর মধ্যে পুরোনো নিবন্ধনের আওতায় পুনর্নিবন্ধন নিয়েছে ৪২ হাজার ৯৫টি প্রতিষ্ঠান। আর ১ হাজার ১৪৯টি নতুন প্রতিষ্ঠান নিবন্ধন নিয়েছে।

পাঠক মন্তব্য () টি

বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্ক রোল মডেল: অরুণ জেটলি

বাংলাদেশ-ভারতের শিকড় এক, দুই দেশের চ্যালেঞ্জও এক।

ভারত-বাংলাদেশ ৩৬ হাজার কোটি টাকার ঋণ চুক্তি সই

বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে ৪৫০ কোটি ডলারের (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৩৬ হাজার…

নতুন অর্থসচিব মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী

নতুন অর্থসচিব হয়েছেন মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী।

কপিরাইট ২০১৪ onlineBangla.com.bd
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: গুলবুদ্দিন গালীব ইহসান
অনলাইন বাংলা, ৬৯/জি গ্রিন রোড, পান্থপথ (নীচ তলা), ঢাকা-১২০৫।
ফোন: ৯৬৪১১৯৫, মোবাইল: ০১৯১৩৭৮৯৮৯৯
ইমেইল: contact.onlinebangla@gmail.com
Developed By: Uranus BD